Home / সাজঘর / রাতের পার্টিতে গ্ল্যামারস লুক আনার সহজ কিছু টিপস!

রাতের পার্টিতে গ্ল্যামারস লুক আনার সহজ কিছু টিপস!

দিন এবং রাতের পার্টিতে সাজসজ্জা অবশ্যই আলাদা হবে এটা আমাদের সবার জানা। দিনের পার্টিতে খুব বেশি জাঁকজমকপূর্ণ পোশাক, গয়না বা মেকআপ কোনোটাই খুব বেশি ক্যাটকেটে হলে দেখতে ভালো লাগবে না। সিম্পল ও স্নিগ্ধ থাকলেই ভালো লাগে। কিন্তু রাতের পার্টিতে একটু গ্ল্যামার লুক না থাকলে কি চলে?

রাতের পার্টিতে একটু স্মোকি আই, একটু ভারি সাজ আপনাকে করে দিবে সবার থেকে আলাদা। আসুন তাহলে জেনে নিই রাতের পার্টিতে গ্ল্যামার লুক আনার কিছু টিপস।

কোন পোশাক পরবেন আগে সেটা বাছাই করুন। তারপর পোশাকের সাথে মিল রেখে মেকআপ করুন। কারণ শাড়ির সাথে যে সাজ যাবে সেটা কামিজ বা গাউনের সাথে মানাবে না। আবার যদি আপনার পোশাক ওয়েস্টান হয়ে থাকে তাহলেতো পুরো সাজই পালটে যাওয়া উচিৎ।

সন্ধ্যা বেলার লুকে কম্প্যক্ট পাউডারের তুলনায় ফাউন্ডেশনের স্মুদ বেইজ ভালো মানায়। ভালো করে ব্লেন্ড করে নিন ত্বকের সাথে মানানসই ফাউন্ডেশন। চোখের নিচ এবং ত্বকে দাগের জন্য ব্যবহার করুন সামান্য কনসিলার।

সন্ধ্যা বা রাতের পার্টির জন্য চোখের সাজ স্মোকি দিন। এতে গ্ল্যামারাস ও বোল্ড লুক আসবে। পোশাকের সাথে মিলিয়ে ব্লু, গ্রে, ব্ল্যাক ধরনের আইশেডের ডার্ক রঙগুলো ব্যবহার করুন।

রাতের মেকআপে গ্ল্যামারাস লুকের জন্য যেমন বেইজটা হালকা ও স্মুদ দিয়েছেন তেমনি লক্ষ্য রাখবেন ব্লাশঅনের ক্ষেত্রেও। অনেক কড়া রঙের ব্লাশঅন এড়িয়ে চলুন। হালকা করে পিংক, পিচ ধরনের ব্লাশঅন দিয়ে নিন।

যদি চোখের সাজ স্মোকি করেন তাহলে এর সাথে বেশ ভালো মানিয়ে যাবে ন্যুড লিপস্টিক। পিচ, বেবি পিংক, লাইট ব্রাউন ইত্যাদি রঙের লিপস্টিকগুলো আপনার ঠোঁটের সাজেও নিয়ে আসবে গ্ল্যামারাস লুক।

পোশাকের সাথে মিলিয়ে চুল বাঁধুন। চাইলে চুল খোলা রেখে দিতে পারেন। চাইলে চুল কার্ল করতে পারেন অথবা স্ট্রেট করেও ছেড়ে রাখতে পারেন। রাতের পার্টির জন্য বেশ ভালোই মানাবে।

পোশাক খুব ভারি হলে সাজ বা গয়না হালকা রাখলেই ভালো করবেন। আর রাতের পার্টির জন্য পোশাক বা গয়না যেকোনো একটি একটু গর্জিয়াস হলে বেশি ভালো লাগবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *