Home / সাজঘর / কোন মুখে মানাবে কোন কানের দুল? দেখে নিন!

কোন মুখে মানাবে কোন কানের দুল? দেখে নিন!

পোশাক যতই আকর্ষণীয় হোক, এক জোড়া ঠিকঠাক কানের দুল না হলে মেয়েদের সাজ সম্পূর্ণ হয় না। এখন আপনি ভাববেন, এ আর এমন কী। কানের দুল তো আমরা পরেই থাকি। কিন্তু না, ফ্যাশন এক্সপার্টরা বলছেন শুধু পোশাকের সঙ্গে মানানসই দুল বাছাই যথেষ্ট নয়। বরং কানের দুল কেমন হবে, তা নির্ভর করবে আপনার মুখের গঠনের উপরেও।

মুখ যদি লম্বাটে হয়, গাল এবং থুতনি সরু হয় এবং কপাল একটু চওড়া হয়, তাহলে ভারী এবং জমকালো দুলই আপনার জন্য পারফেক্ট। তাতে মুখ ভরাট লাগবে। পাথর বসানো এবং গোলাকৃতি কানের দুলও আপনার মুখে ভালো মানাবে।

অনেকের মুখ লম্বায় এবং চওড়ায় প্রায় একই হয়। সেক্ষেত্রে এমন দুল পরুন, যার নিচের দিকটা গোলাকার। ওভাল শেপ ইয়াররিং বা হুপ ইয়াররিংও পরতে পারেন। এতে আপনার লুকে নমনীয়তা আসবে।

আপনার মুখ যদি হার্ট-শেপ হয়, তাহলে আপনার জন্য বেস্ট হল নিচের দিকটা সরু এবং উপরের দিকটা চওড়া এমন আকৃতির দুল। কারণ, হার্ট-শেপ মুখমণ্ডল যাদের, তাদের থুতনির কাছটা সরু হয়। এর সঙ্গে পারফেক্ট এইধরনের কানের দুল। চ্যান্ডেলিয়র বা লং টিয়ারড্রপ ইয়াররিং পরতে পারেন।

অনেকের চোয়াল এবং কপাল সমান চওড়া হয়। অর্থাৎ মুখমণ্ডল প্রায় গোল হয়। এক্সপার্টরা বলছেন, এরাই সবথেকে লাকি। কারণ, এদের মুখে সবধরনের দুলই ভালো মানায়। এরা যেকোনওরকম এক্সপেরিমেন্ট নির্দ্বিধায় করতে পারেন। তবে সিম্পল বা চৌকো ধরনের দুল পরলে বেশি ভালো লাগবে।

মুখ যদি ডায়মন্ড শেপ হয় অর্থাৎ যাদের কপাল বেশি চওড়া নয়, গাল ভরা এবং চোয়াল সরু তারা ভারী এবং চওড়া কানের দুল পরতে পারেন। বেশ জমকালো, পাথর বসানো দুলও ভালো লাগবে। পরতে পারেন টাসেল বা ওয়াইড চ্যান্ডেলিয়র রিংও।

সবশেষে, কপালের তুলনায় চোখের নিচের অংশ যাদের চওড়া এবং থুতনিও সরু নয়, তাদের জন্য পারফেক্ট হল জেমস্টোন, বাবলস বা কার্ভড কানের দুল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *